ঢাকা,রোববার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

গ্রিসের হেলেনিক ক্যাপিটাল মার্কেট কমিশনের সাথে বিএসইসির চুক্তি

দেশের পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) এবং গ্রিসের হেলেনিক ক্যাপিটাল মার্কেট কমিশনের (এইচসিএমসি) মধ্যে একটি সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) স্বাক্ষরিত হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৩ জুন) সকালে থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাংককে এ এমওইউ স্বাক্ষরিত হয়। এ সময় গ্রিসের বিনিয়োগকারীদের বাংলাদেশে বিনিয়োগের আহ্বান জানিয়ে সম্ভাবনার দিকগুলো তুলে ধরা হয়।

বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মোহাম্মদ রেজাউল করিম স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এই বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে।থাইল্যান্ডের ব্যাংককে বিএসইসি ও গ্রিসের এইচসিএমসি মধ্যে একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর হয়েছে। বিএসইসির পক্ষে সংস্থাটির চেয়ারম্যান (সিনিয়র সচিব) ও আইওএসকো-এপিআরসির ভাইস চেয়ার অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম এবং এইচসিএমসির পক্ষে সংস্থাটির চেয়ারম্যান ড. ভাসিলিকি লাজারাকাউ সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন।

২০২২ সালের ২৩ ও ২৪ অক্টোবর বিএসইসির চেয়ারম্যান গ্রিস সফরকালে উক্ত সমঝোতা স্মারকের (এমওইউ) খসড়া প্রস্তুত করে উভয় কর্তৃপক্ষ এমওইউ স্বাক্ষরে সম্মত হয়। পরবর্তীতে উভয় দেশের সরকারের অনুমোদনের পরিপ্রেক্ষিতে থাইল্যান্ডের ব্যাংককে অনুষ্ঠিত আইওএসকোর বার্ষিক সভা চলাকালে উক্ত এমওইউ স্বাক্ষরিত হয়। এ সময় নিয়ন্ত্রক সংস্থা দুটির গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। এ সমঝোতা স্মারকের মাধ্যমে সিকিউরিটিজ বাজার তত্ত্বাবধান সংক্রান্ত পারস্পরিক সহায়তা ও তথ্য বিনিময় এবং পারস্পরিক সহযোগিতার দ্বার উন্মোচিত হলো।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও উল্লেখ করা হয়, সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের পরে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক হয়, যেখানে পুঁজিবাজার সংক্রান্ত অনেক গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে আলোচনা হয়। অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অগ্রযাত্রা এবং সম্ভাবনার বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন। একই সঙ্গে গ্রিসের বিনিয়োগকারীদের জন্য বাংলাদেশে বিনিয়োগের সম্ভাবনার দিকগুলোও আলোচনা করেন।

এদিকে, বিশ্বের বিভিন্ন দেশের পুঁজিবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থার সংগঠন ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজেশন অব সিকিউরিটিজ কমিশনসের (আইওএসকো) এশিয়া প্যাসিফিক রিজিওনাল কমিটির (এপিআরসি) সভা হয়েছে। মঙ্গলবার (১৩ জুন) সকালে থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাংককে এ সভা হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন বিএসইসির চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল ইসলাম।

আইওএসসিওর উদ্যোগে সিকিউরিটিজ এক্সচেঞ্জ কমিশন থাইল্যান্ডের আয়োজনে ব্যাংককে ১৩ থেকে ১৫ জুন পর্যন্ত আইওএসসিও’র বার্ষিক সভা হবে। এ সভার অংশ হিসেবে মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় এশিয়া প্যাসিফিক রিজিওনাল কমিটির (এপিআরসি) একটি সভা হয়েছে। ওই সভায় সভাপতিত্ব করেন শিবলী রুবাইয়াত-উল ইসলাম।

শুরুতে আইওএসসিও’র ডেপুটি সেক্রেটারি জেনারেল তাজিনদার সিং বোর্ড সভার আলোচনার ওপর আলোকপাত করেন। এরপর আইওএসসিও’র বোর্ডের চেয়ারম্যান এবং বেলজিয়ামের ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিসেস অ্যান্ড মার্কেটিং অথরিটির চেয়ারম্যান জিয়ান পার্ল সার্ভাইস সভায় উপস্থিত এপিআরসি’র সদস্যদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করে তার মতামত তুলে ধরেন।

এবারের এপিআরসি সভায় সিঙ্গাপুর, চীন, হংকং, জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া, অস্ট্রেলিয়া, ভারত, থাইল্যান্ড, নিউজিল্যান্ড, মালেশিয়া, ইন্দোনেশিয়া, ভিয়েতনাম, লাওস, কম্বোডিয়া, চাইনিজ তাইপে, মালদ্বীপ, ব্রুনাই, শ্রীলঙ্কা, নেপালসহ এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চলের অন্যান্য দেশের পুঁজিবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থার শীর্ষস্থানীয় কর্মকর্তাসহ তাদের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম আইওএসকোর বার্ষিক সভায় যোগ দিতে বর্তমানে থাইল্যান্ডের ব্যাংককে অবস্থান করছেন৷

পাঠকের মতামত: