ঢাকা,শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪

ডিএসইর নতুন পর্ষদে আসছেন যারা

দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের পরিচালনা পর্ষদের মেয়াদ শেষ হচ্ছে আগামী ১৮ ফেব্রুয়ারী। নতুন পর্ষদ গঠন করার জন্য ইতোমধ্যে নিয়ন্ত্রক বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনে (বিএসইসি) ১৮ জনের নামের তালিকা জমা দিয়েছে ডিএসই। এর মধ্যে পর্ষদের চারজন পরিচালকের নাম রয়েছে। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

ডিমিউচ্যুয়ালাইজেশন আইন অনুযায়ী উভয় স্টক এক্সচেঞ্জের পর্ষদে ১৩ জনের মধ্যে ৭ জন স্বতন্ত্র পরিচালক ও ৪ জন শেয়ারহোল্ডার পরিচালক থাকবে। এছাড়া একজন কৌশলগত বিনিয়োগকারীর মনোনিত পরিচালক এবং পদাধিকার বলে পর্ষদে আরেকজন রয়েছেন ব্যবস্থাপনা পরিচালক।

সূত্র মতে, আগামী ১৮ ফেব্রুয়ারি বর্তমান পর্ষদের মেয়াদ শেষ হচ্ছে। তবে ১৭ ও ১৮ ফেব্রুয়ারি সাপ্তাহিক বন্ধ থাকায় ১৬ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার তাদের মেয়াদ শেষ হবে। ১৮ জনের নাম থেকে পাঁচ জনকে নিয়োগ দিবে বিএসইসি। বিএসইসিতে পাঠানো তালিকার মধ্যে বর্তমান পর্ষদের চারজনের নাম রয়েছে। তারা হলেন- ডিএসইর বর্তমান চেয়ারম্যান ও অর্থ মন্ত্রণালয়ের সাবেক সিনিয়র সচিব ও মোঃ ইউনুসুর রহমান, পরিচালক ও অর্থ মন্ত্রণালয়ের সাবেক অতিরিক্ত সচিব মিসেস সালমা নাসরীন, এফবিসিসিআই’র সাবেক সিনিয়র সহসভাপতি মোঃ মুনতাকিম আশরাফ, বুয়েটের শিল্প উৎপাদন প্রকৌশল বিভাগের প্রফেসর ড. এ. কে. এম. মাসুদ।

নতুন তালিকায় যুক্ত হওয়া সদস্যরা হলেন- বিআইবিএম এর ফ্যাকাল্টি ও বেসিক ব্যাংকের সাবেক ডিএমডি আব্দুল কাইয়ুম মোহাম্মদ কিবরিয়া, বিটিআরসির বর্ণালী বিভাগের সাবেক মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) মোঃ শহিদুল আলম পিবিজিএমএস, নর্থসাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক মোঃ সৈয়দ-উজ-জামান খান (পিএইচডি), ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যাংকিং এবং বীমা বিভাগের অধ্যাপক প্রফেসর ড. আবদুল্লাহ আল মাহমুদ, টোকা কালি বাংলাদেশ লিমিটেড এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক, ডিসিসিআই’র সাবেক সভাপতি ও এফবিসিসিআই’র সহ-সভাপতি মোঃ আব্দুল মোমেন, ওরাকল বাংলাদেশের কান্ট্রি ম্যানেজিং ডিরেক্টর (নেপাল ও ভুটান) মিসেস রুবাবা দৌলা, সাবেক সচিব ও বাংলাদেশ ট্রেড অ্যান্ড ট্যারিফ কমিশনের (বিটিটিসি) চেয়ারম্যান মোঃ আফজাল হোসেন, বাংলাভিশন এর নিউজ এডিটর মিসেস শাহনাজ শারমিন রিনভী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইঞ্জিনিয়ারিং এবং প্রযুক্তি অনুষদের ডিন ডা. হাফিজ মোঃ হাসান বাবু, সৈয়দ ইশতিয়াক আহমেদ অ্যান্ড অ্যাসোসিয়েট এর পার্টনার মিসেস নাজিয়া কবির, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃতত্ত্ব বিভাগের কোষাধ্যক্ষ ও অধ্যাপক ড. রাশেদা আখতার, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের অধ্যাপক ড. সাবিতা রেজওয়ানা রহমান, ডিএসইর সাবেক পরিচালক ও এম/এস. জেনেটিকা এর চেয়ারম্যান ড.মনোয়ারা হাকিম আলী এবং বাংলাদেশ সুপ্রিমকোর্টের অ্যাডভোকেট শায়লা ফেরদৌস।

এনজে

পাঠকের মতামত: