ঢাকা,রোববার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩

শস্য রফতানি বেড়েছে ইউক্রেনের

রাশিয়া-ইউক্রেন চলমান যুদ্ধের মধ্যেও চলতি বছরের জুলাই-জুন মৌসুমে ইউক্রেনের শস্য রফতানি ২৭ লাখ ৬০ হাজার টনে পৌঁছেছে। দেশটির কৃষি মন্ত্রণালয়ের তথ্য প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে। খবর রয়টার্স।

ইউক্রেনের কৃষি মন্ত্রণালয় সরাসরি গত বছরের সঙ্গে তুলনা করেনি। তবে ২০২২ সালের ১২ আগস্ট পর্যন্ত রফতানি ছিল প্রায় ২৩ লাখ ৪০ হাজার টন। জাতিসংঘ সমর্থিত শস্য চুক্তি থেকে রাশিয়ার বেরিয়ে আসা রফতানি গতিশীলতাকে প্রভাবিত করেছে।

তথ্য প্রতিবেদনে রফতানি কমে যাওয়ার পরের অবস্থা সম্পর্কে কোনো নির্দিষ্ট সংখ্যা উল্লেখ করেনি। শুধু আগস্টে ইউক্রেন ৪ লাখ ৮৮ হাজার টন শস্য রফতানি করেছে। এ মৌসুমে মোট রফতানির মধ্যে ১৩ লাখ ৩০ হাজার টন ভুট্টা, ১০ লাখ ৮০ হাজার টন গম ও ৩ লাখ ৪৯ হাজার টন বার্লি অন্তর্ভুক্ত হয়েছিল।

২০২২-২৩ মৌসুমে ইউক্রেন রফতানিতে প্রায় ৪ কোটি ৯০ লাখ টন অর্জন করেছিল, যা আগের মৌসুমের ৪ কোটি ৮৪ লাখ টন রফতানিকে অতিক্রম করেছে। ইউক্রেনে রাশিয়ার সংঘাত ও বন্দর অবরোধের কারণে বিশ্বব্যাপী খাদ্য ঘাটতি মোকাবেলায় জুলাইয়ে চুক্তি করা হয়েছিল। এরপর বেশির ভাগ রফতানি কৃষ্ণ সাগরীয় বন্দরগুলোর মাধ্যমে হয়েছে।

নিষেধাজ্ঞা ও প্রয়োজনের দেশগুলোয় অপর্যাপ্ত শস্য সরবরাহের বিষয়ের কথা উল্লেখ করে রাশিয়া ১৭ জুলাই চুক্তি থেকে বেরিয়ে আসে। নানামুখী প্রতিবন্ধকতা সত্ত্বেও ইউক্রেন এখন পর্যাপ্ত শস্য উৎপাদন ও রফতানি করতে সক্ষম হচ্ছে। বাজার বিশ্লেষকদের আশা, চলতি মৌসুমে প্রায় সাড়ে পাঁচ কোটি টন শস্য উৎপাদন করতে সক্ষম হবে ইউক্রেন।

এনজে

পাঠকের মতামত: